,

২৮ পর সেমিফাইনাল খেলবে ইংল্যান্ড

ক্রিড়া রিপোর্ট: সংবাদমাধ্যমে খুব বেশি উচ্চবাচ্য না হলেও সবাইকে চমকে দিয়ে ইংল্যান্ড পৌঁছে গেছে রাশিয়া বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে। আর দুই ম্যাচ জিতলেই ১৯৬৬ সালের পর প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপ জিতবে ইংলিশরা। ছেষট্টির বিশ্বকাপে ইংল্যান্ড-নায়ক জিওফ হার্স্ট নিজেদের সঙ্গে যথেষ্ট মিল খুঁজে পাচ্ছেন হ্যারি কেইনদের ! রাশিয়া বিশ্বকাপ শুরু হওয়ার আগে যদি কেউ বলত বিশ্বকাপের সেমিতে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা-জার্মানি-স্পেন থাকবে না, থাকবে ইংল্যান্ড, তাঁকে নিয়ে নিশ্চয়ই খুব হাসাহাসি হতো। কিন্তু এ মুহূর্তে এটিই বাস্তব। বিশ্বকাপের অনেক জনপ্রিয় ও পরাশক্তিরা না পারলেও ইংল্যান্ড কিন্তু ঠিকই জায়গা করে নিয়েছে শেষ চারে। তাদের স্বপ্নটা এখন অনেক বড়। আর দুটি ম্যাচ জিতলেই ৫২ বছরের অপেক্ষার সমাপ্তি ঘটবে। ১৯৬৬ সালের পর ইংল্যান্ড জিতবে বিশ্বকাপ ! ইংলিশদের সবশেষ বিশ্বকাপে জয়ের নায়ক জিওফ হার্স্ট মনে করেন, ইংল্যান্ডের ফাইনালে না ওঠাটা হবে অঘটন।

নিজেদের ছেষট্টির দলটির সঙ্গে যথেষ্ট মিল খুঁজে পাচ্ছেন ছেষট্টির ফাইনালের হ্যাটট্রিক-ম্যান, ‘১৯৬৬ বিশ্বকাপজয়ী দলটির সঙ্গে ২০১৮ বিশ্বকাপের ইংল্যান্ড দলটির বেশ মিল দেখতে পাচ্ছি। আমাদের নেতা ছিল অ্যালফ রামসে, গ্যারেথ সাউথগেটও এখন পর্যন্ত এই দলটাকে দারুণভাবে গুছিয়ে রেখেছে। আমি এই দলের বিশ্বকাপ না জেতার কোনো কারণ দেখছি না। রোববারের ফাইনালে যদি তারা না থাকে, এটা হবে অঘটন।’ একটি ব্যাপারে অবশ্য দারুণ পক্ষপাতিত্ব হার্স্টের। রাশিয়া বিশ্বকাপ ইংল্যান্ড জিতলেও গৌরবের দিক দিয়ে তিনি ছেষট্টির জয়টাকেই এগিয়ে রাখতে চান, ‘ইংল্যান্ড দলটা দুর্দান্ত, কিন্তু এই দলে ববি মুর কিংবা ববি চার্লটনের মতো অত বড় মাপের তারকা নেই। আমাদের ওপর চ্যাম্পিয়ন হওয়ার জন্য যে পরিমাণ চাপ ছিল, সেটি এই দলের ওপর নেই। বিশ্বকাপ শুরুর আগে কোয়ার্টার ফাইনাল খেলতে পারলেই সেটি আমাদের জন্য সাফল্য হতো।’অন্য সবার মতোই ইংল্যান্ড অধিনায়ক হ্যারি কেইনের বড় ভক্ত হার্স্ট। নিজে স্ট্রাইকার ছিলেন বলেই হয়তো কেইনের কাজটা কতটা কঠিন সেটি বুঝতে পারেন হার্স্ট, ‘হ্যারি খেলোয়াড় হিসেবে যেমন অসাধারণ, মানুষ হিসেবেও বিনয়ী। ইংল্যান্ডের সব রেকর্ড ভেঙে দেওয়ার ক্ষমতা তাঁর রয়েছে।’ কাল বিশ্বকাপের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে ক্রোয়েশিয়ার মুখোমুখি হবে ইংল্যান্ড। এই ম্যাচটা আগে জিতলে তবেই ফাইনাল বা বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হওয়ার প্রসঙ্গ আসছে। তবে ২৮ বছর পর বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে ওঠাটা তো বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পথে অনেকটাই এগিয়ে যাওয়া। হার্স্টের মন্তব্যগুলো এখন ইংল্যান্ডকে করলেই হয়!

Sharing is caring!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


সংবাদ পড়তে লাইক দিন ফেসবুক পেজে
shares